Home নিয়মিত খোলা-ডাক খোলা ডাক

খোলা ডাক

একনিষ্ঠ অভিভাবক
আমাদের জীবনে অবশ্যই অভিভাবক থাকা দরকার। কারণ, অভিভাবক না থাকলে, আমাদের পরামর্শদাতা থাকবে না। অবশ্যই আমার অভিভাবক নিয়ে এতো চিন্তা করার প্রয়োজন হয় না। কেননা, আমার একজন একনিষ্ঠ অভিভাবক রয়েছে। তার নাম কিশোরকণ্ঠ। আমার মতো সকলের অভিভাবক হিসেবে কাজ করবে কিশোরকণ্ঠ। কিশোরকণ্ঠ হলো সর্বশ্রেষ্ঠ অভিভাবক, পরামর্শদাতা এবং আমাদের জীবনসঙ্গী। কিশোরকণ্ঠের ছড়া, কবিতাগুলোর উপদেশসমূহ সব সময় একনিষ্ঠ অভিভাবকের কাজ করে আসছে। আমি কিশোরকণ্ঠের সর্বোচ্চ সাফল্য কামনা করি।
আবদুল ওহাব (বাবুল), চরকলৈাশ হাদিয়া ফাজিল মাদ্রাসা, হাতিয়া, নোয়াখালী

শৈশবের স্মৃতি
ঠিক ১১ বছর আগের কথা। তখন আমি ষষ্ঠ শ্রেণিতে পড়তাম। মাদ্রাসার এক বড় ভাইয়ের কাছ থেকে আমি একটি কিশোরকণ্ঠ পত্রিকা পেয়েছিলাম। পাওয়া মাত্রই আমার চোখ প্রচ্ছদেই কিছুক্ষণ আটকে যায়। এরপর সূচিপত্র দেখে আরো চমকে গেলাম এবং মনের মাঝে খুব আনন্দ অনুভব করছিলাম পত্রিকাটি পেয়ে। সূচিপত্রে দেখলাম হাসির বাক্স নামে একটি বিভাগ আছে। ভেতরে যাওয়ার পর হাসির বাকসোটি পড়ে খুব মজা পেলাম আর বন্ধুরা মিলে কিছুক্ষণ হাসলাম। এর পর থেকে নিয়মিত কিশোরকণ্ঠ পত্রিকাটি সংগ্রহ করি ও পড়তে থাকি। প্রত্যেক মাসেই কিশোরকণ্ঠ পত্রিকা পড়া আমার নেশার মতো হয়ে যায়। আজও যখন বাড়িতে যাই পুরনো সংখ্যাগুলো দেখলে ঠিক আমি শৈশবের স্মৃতিতেই হারিয়ে যাই।
মোস্তফা কামাল, কায়েমকোলা, ঝিকরগাছা, যশোর

খুবই প্রিয়
খুব বলতে আমার কাছে কিশোরকণ্ঠ অনেক বেশিই প্রিয়। এই পত্রিকা পড়ে আমি অনেক কিছুই শিখেছি। বিশেষ করে কয়েক বছর আগে ‘জানার আছে অনেক কিছু, কিশোর জিজ্ঞাসা, মুখোমুখি’ আরো অনেক প্রকার ভালো ভালো বিভাগ ছিল। এই বিভাগগুলো পড়ে অনেক মজা পেতাম, কিন্তু দুঃখের বিষয় এ বিভাগগুলো এখন আর দেখা যায় না। আমি কিশোরকণ্ঠের দায়িত্বশীলদের প্রতি অনুরোধ করছি- প্লিজ ভালো ভালো কয়েকটা পুরাতন বিভাগ আবার চালু করা হোক। তবে আনন্দের বিষয় এখনও কিন্তু কিশোরকণ্ঠ খারাপ না, সুন্দর সুন্দর চমৎকার লেখকদের গল্প, উপন্যাস, ছড়া-কবিতা আমার খুব ভালো লাগে। যাই হোক কিশোরকণ্ঠ আমি কয়েক বছর ধরে পড়ে আসছি, এখনও পড়ি এবং পড়ে যাবো যত দিন বেঁচে থাকি ইনশাআল্লাহ্। অবশেষে বলছি- কিশোরকণ্ঠ আমার খুব খুবই প্রিয়।
জাবির আহমেদ জিহাদ, চিনাডুলী, ইসলামপুর, জামালপুর

SHARE

Leave a Reply