Home গল্প বুদ্ধিতে বাজিমাত – রিজুয়ান আহমেদ

বুদ্ধিতে বাজিমাত – রিজুয়ান আহমেদ

অনেক দিন আগে, এক জঙ্গলে বাস করত নানা-রকম জীবজন্তু। বনের রাজা ছিল সিংহ আর মন্ত্রী ছিল ভল্লুক। ঐ বনে একপাশে ছিল একটি পুকুর। এর পানি খুবই পরিষ্কার ছিল। ঐ পুকুরের পাশে বাস করত একটি দুষ্টু বক। বক সারাদিন ভাবত কিভাবে পুকুরের মাছ ও কাঁকড়া খাওয়া যায়। তখন তার মাথায় একটি দুষ্টু বুদ্ধি এলো।
বক পুকুরের মাঝের পাথারে বসে চোখ বন্ধ করে রইল। অন্যান্য প্রাণীরা ভাবতে লাগল, যে বক তাদেরকে খেতে উঠে পড়ে লেগেছিল সে বক কিনা আজ ঘুমোচ্ছে। তারা ভাবল যে বক বুড়ো হয়েছে তাই ভালো হয়ে গেছে। এভাবেই অন্যরা তাকে বিশ্বাস করে উঠল। এভাবেই কয়েক দিন চলতে লাগল। তারপর একদিন বক হাউমাউ করে কেঁদে উঠল। কাঁকড়ারা ও মাছরা তার কাছে গেল ও কাঁদার কারণ জানতে চাইল। বক বলল, ‘এ বনের প্রাণীদের দুঃখের দিন উপস্থিত’- কাঁকড়া বলল ‘বক মামা যা বলার সোজাসুজি করে বল।’ বক বলল, কিছু দিনের মধ্যে এ বনে এক ‘খরা’ দেখা যাবে। যার ফলে বনের পুকুরটা শুকিয়ে যাবে। এটা বলে বক আরো জোরে হাউমাউ করে কাঁদতে লাগল। সবাই এ কথা বিশ্বাস করল। সব মাছ ও কাঁকড়ারা বললো বককে একটা বুদ্ধি বের করতে। বক বলল যে একটি বুদ্ধি আছে। সবাই বলল, কী বুদ্ধি তাড়াতাড়ি বল, নইলে যে পানির অভাবে মরতে হবে।
বক বলল, তোমরা যদি রাজি থাক, তবে তোমাদেরকে পাশের একটি নদীতে রেখে আসব। সবাই বকের দেয়া প্রস্তাবে রাজি হয়ে গেল। তারপর একদিন তারা এক স্থানে এসে জড়ো হলো আর বক এসে পড়ল এবং সবাইকে এক এক করে নিয়ে গেল।

SHARE

Leave a Reply