Home হাসির বাকসো হাসির বাকসো

হাসির বাকসো

বল্টু ও পল্টুর মধ্যে কথোপকথনÑ
বল্টু : ভূগোল কাকে বলে?
পল্টু : যেটা ভু ভু করে ও পাগলদের ক্ষেত্রে প্রযোজ্য, তাকে ভূগোল বলে।
বল্টু: এর আরেকটা মানে আছে।
পল্টু: সেটা কি?
বল্টু : তোকে এক্ষুনি স্কুল থেকে বের করে দিবো, একেও ভূগোল বলে।
পল্টু: এর আরেকটা মানে আছে।
বল্টু: সেটা কি?
পল্টু: তুমি আমাকে স্কুল থেকে বের করে দিলে আমার ক্ষতি হবে, একেও ভূগোল বলে।
মতিউর রহমান, ইবি, কুষ্টিয়া

এক বিদেশি গ্রামে বেড়াতে এসেছেন। গ্রামের মেঠোপথ ধরে এক গ্রাম্য নিরক্ষর ব্যক্তিকে আসতে দেখে তিনি সৌজন্য দেখিয়ে জিজ্ঞেস করলেন যড়ি ফড় ুড়ঁ ফড়? গ্রাম্য ব্যক্তির জবাব, মোর আর খায়া দায়া কাজ নাই অন্যের লগে হা-ডু-ডু খেলি?
আবু আবদুল্লাহ, গোয়াইনঘাট, সিলেট

ট্রেন চলছে। হঠাৎ ট্রেনটি রেললাইন ছেড়ে এঁকে বেঁকে ধানক্ষেতে ছুটে গেলো। তারপর আবার ট্র্যাকে ফিরলো। যাত্রীরা চেন টেনে ট্রেন থামালো।
যাত্রী : কি হলো এইটা?
ড্রাইভার : আরে হঠাৎ একটা লোক দেখলাম, লাইনের ওপর দাঁড়িয়ে আছে।
যাত্রী : তাই বলে আপনি হাজার হাজার যাত্রীর জীবন বিপন্ন করবেন? ঐ লোকটাকে মারলেন না কেন?
ড্রাইভার : সেটাই করতে চাইলাম। কিন্তু সে লাইন ছেড়ে ধানক্ষেতে দৌড় দিলো। দৌড়াইয়া ধরতে পারলাম না।
আশিকুর রহমান, জয়দেবপুর, গাজীপুর

রহিম করিমের কাছে ঋধপবনড়ড়শ চালানো শিখছে। হঠাৎ রহিম ফায়ার সার্ভিসকে ফোন করল।
করিম: কিরে ফায়ার সার্ভিসকে ফোন করলি কেন?
রহিম : দেখলি না ফোনের ভেতরে একজন মানুষ। তাকে উদ্ধার করতে হবে।
হাবিবুল হাসান অন্তর
মেডিক্যাল রোড, সিলেট

দুই বন্ধু সুন্দরবনে বেড়াতে গেল। হঠাৎ একটা বাঘ তাদের সামনে এসে হাজির!
১ম বন্ধু : বাঘের চোখে একটা ঢিল মেরে দিল এক দৌড় এবং ২য় বন্ধুকে বলল, দোস্ত, দৌড়ে পালা!.
২য় বন্ধু : আমি পালাবো কেন? আমি কি বাঘের চোখে ঢিল মেরেছি নাকি? তুই বাঘের চোখে ঢিল মেরেছিস, তুই-ই দৌড়ে পালা!!
মু. আবু নাঈম, হাড়িভাসা, পঞ্চগড়

বড় ভাই কম্পিউটারে গেম খেলছে। তার লাইফ প্রায় শেষ।
বড় ভাই : ইশ! আরেকটা লাইফ পেলেই আমি গেমটাতে জিততাম।
(একথা শুনে ছোট ভাই এক গ্লাস পানি এনে কম্পিউটারের ওপর ঢেলে দিল।)
বড় ভাই : (ভীষণ রেগে) এটা তুই কি করলি?
ছোট ভাই : কেন? তুমি না লাইফ চাইছিলে? আর পানির অপর নাম তো জীবন মানে লাইফ। তাই আমি পানি ঢেলে দিলাম।
তাযকিয়া তাবিয়া রিফাত
শান্তিনগর, পীর সাহেব গলি, ঢাকা

ফাহিম : কয়েকজন বিখ্যাত বিজ্ঞানীর নাম বলতো?
আবরার: নিউটন, ডাল্টন, আইনস্টন ইত্যাদি।
ফাহিম : আইনস্টন কেন?
আবরার : দেখস না বড় বড় বিজ্ঞানীদের নামের শেষে টন থাকে তাই আইনস্টাইন নয় আইনস্টন হবে।
ফাহিম: হুম, তাইতো আমার ভাইয়ের নাম ছোটন রাখছি। বুঝতে হবে!
সাইদুল ইসলাম
বিজিবি ক্যাম্প কক্সবাজার

চিকিৎসক : প্রতিদিন ৫ কিলোমিটার করে দৌড়াবেন। তাহলে ১ বছরে ৫০ কেজি ওজন কমবে। এক বছর পর বল্টু চিকিৎসককে ফোন করল-
বল্টু : ভাই, ওজন তো কমছে কিন্তু বাড়ি ফেরত যাব কিভাবে?
চিকিৎসক : কেন? আপনি এখন কোথায়?
বল্টু : জানি না। তবে প্রতিদিন ৫ কিলোমিটার করে দৌড়াতে দৌড়াতে বাড়ি থেকে ১,৮২৫ কিলোমিটার দূরে চলে এসেছি।
মো: আব্দুল্লাহ আযযাম
পঞ্চগড়

SHARE

Leave a Reply