Home ছড়া-কবিতা ছড়া-কবিতা

ছড়া-কবিতা

বৈশাখ দেয় ডাক
কে জি মোস্তফা

১. বৈশাখ দেয় ডাক
চলো যাই বাইরে
ঝড় বয় কিবা ভয়
হিম্মত চাইরে।

২. দুর্গম পথে আসুক বাধা
গর্জে উঠুক তুফান
ঝড়ের রাতের যাত্রী মোরা
হই যে আগুয়ান।

ঝঞ্ঝা নামে নামুক
বজ্রশিখা জ্বলুক
নেই কোন ভয় মোদের কাছে
নির্ভীক যে প্রাণ।

জীবন দিয়ে করবো মোরা
মরণকালের জয়
আলোর কাছে চিরদিনই
আঁধার হবে ক্ষয়।

যাত্রা পথের বাধা
লাগবে না আর ধাঁ-ধাঁ
বজ্রকণ্ঠে গেয়ে চলি
এগিয়ে চলার গান ॥

আর রহমান
মাজেদুল ইসলাম

অনুভূতির সাগরে
হৃদয়ের গভীরে
জপি যার নাম-
আর রহমান।

নির্জনে নিরালায়
নামাজের সিজদায়
বলি যার নাম-
আর রহমান।

নীলিমার নীলে
সাগর ও ঝিলে
পাই যার নাম-
আর রহমান।

রাতের গভীরতায়
হৃদয়ের নীরবতায়
খুঁজে ফেরে যে নাম-
আর রহমান।

হতাশার বেড়াজালে
কষ্টের দাবানলে
প্রশান্তি দেয় যে নাম-
আর রহমান।

একান্ত সঙ্গোপনে
সকল অর্জনে
স্মরি তোমার নাম-
আর রহমান।

আসছে বৈশাখ
আবুল হাসান জারজিস

আসছে বৈশাখ হাসছে বাংলা হাসছে হৃদয় মোর
আকাশ ফুঁড়ে উঠছে রবি আসবে নতুন ভোর।
উঠবে পাখি কূজন ডাকি বেদনা ঝরে যাক
নতুন বছর খুশির জোয়ার ফুলেরা দেয় ডাক।
ফুলের গন্ধে মন আনন্দে বৈশাখ ডেকে কয়
ধুয়ে যাক যত দুঃখ বেদনা পুলকের হবে জয়।
সুদিনের জয় হোক তবে জানবে ইতিহাস
মুছে যাক ঘুচে যাক যতো আছে পরিহাস।

কোকিল ডাকা ভোর
আকিব শিকদার

কোকিল তবে ডাকলো নাকি!
শিমুল তবে ফুটলো নাকি!
ফাগুন তবে আসলো নাকি!

ও কোকিল তুই কোথায় পেলি-
এমন মধুর সুর, এমন মধুর ভাষা?
তোর কণ্ঠ বুঝি করলো মধুর আমার বাংলা ভাষা!

ও শিমুল তুই কোথায় পেলি-
এমন ভীষণ রূপ, এমন আবির মাখা?
তোর গায়ে কি আমার ভাইয়ের রক্ত ছাকাছাকা!

গ্রীষ্মে
এস আই সানী

আসলো দারুণ বোশেখ মাস,
হঠাৎ হঠাৎ আকাশ কালো-
কাল বোশেখির পূর্বাভাস।
ঘটায় সে যে সর্বনাশ,
চাল উড়ে যায় ডাল উড়ে যায়
আকাশ তলে বসবাস।

গরম হাওয়ায় জ্যৈষ্ঠ বয়,
নানান ফলের সুঘ্রাণে-
ভোরের বাতাস থমকে রয়।
গ্রীষ্মে শুধুই গরম নয়,
আম পাকে জাম পাকে
কাঁঠাল পাকে বাগানময়।

গাঁয়ের বধূ হাঁড়িতে,
মধুমাসের ফল-পাকড়
থোয় সাজিয়ে সারিতে।
চড়ে নানান গাড়িতে,
জ্যৈষ্ঠ ফলের আমন্ত্রণে-
স্বজন আসে বাড়িতে।

আজকে নববর্ষ  দিনে
আ. শ. ম. বাবর আলী

আজকে নববর্ষ দিনে
ইচ্ছা মনে হয়,
শুচি শুভ কর্ম দিয়ে
বিশ্ব করি জয়।

আমার শক্তি সাহস দিয়ে
গড়ি প্রাণের দেশ,
চারদিকেতে সৃষ্টি করি
শান্তি পরিবেশ।

গত বছর নানাভাবে
যা করেছি ভুল,
ভুলে সে সব নতুন প্রাণে
আজ ফোটাবো ফুল।

সবার জন্য করবো সৃজন
তাদের যেসব নেই,
আজকে নববর্ষ দিনে
শপথ আমার এই।

প্রিয় নবী মোস্তফা সা.
পরিকল্পনাবিদ সিরাজুল ইসলাম

তোমার নবী আমার নবী
বিশ্ব নবী মোস্তফা,
সেই নবীরই আগমনে
আঁধার দিল ইস্তফা।

আঁধার কালো ধরার বুকে
আনতে আলোর বান
ছুটলেন তিনি আজীবন
উঠল জয়গান।

মানুষ মাঝে সব ভেদাভেদ
করলেন তিনি দূর,
ন্যায় ও সাম্য নিয়ে
বাজল মধুর সুর।

সুখ আর শান্তি সমেত
এলো প্রিয় সমাজ,
উঠল আরব বক্ষ মাঝে
উড়ল নিশান দরাজ।

আরবের প্রান্ত থেকে
ছড়িয়ে গেল তা,
বিশ্বময় আলোর ছোঁয়া
পরম মমতা।

SHARE

Leave a Reply