Home কুরআন ও হাদিসের আলো কুরআনের আলো দেশের প্রতি ভালোবাসা

দেশের প্রতি ভালোবাসা

বারবার ওপরের দিকে তাকিয়ে নাজীব খুঁজে ফিরছে বাংলাদেশের আকাশ! জোসনা রাতে আদম-সুরতের দেখা পেয়ে তার মনে পড়ল, পাঠ্যবইয়ে এই তারকাপুঞ্জের পরিচয় জানতে পেরে সে চোখ রেখেছিল আকাশের সীমানায়। উঠোনের এক পাশে জেগে থাকা বাতাবি গাছটার ঠিক সামনে দাঁড়িয়ে। সে কথা এখন তাকে কেবলই স্মৃতিকাতর করে তুলছে।
কয়েক বছর হলো, নাজীবের বাবা-মা বিদেশে থাকেন। কিন্তু সে পড়াশোনা করে বাংলাদেশেই। মাঝে মধ্যে বেড়াতে যায়। এবার বেড়াতে গিয়েই পড়লো ঝামেলায়। ভিসা জটিলতায় ফিরে আসতে তার বেশ দেরি হচ্ছে। সহপাঠীদের মুখগুলো মনের পর্দায় ভেসে উঠছে বারবার। ভেসে উঠছে লাল-সবুজের পতাকাও। কারণ, ক’দিন পরই বিজয় দিবস। এবার বিজয় দিবসে দেশে থাকতে না পারার কষ্টে তার হৃদয়টা যেন নীল হয়ে আছে। আপন জন্মমৃত্তিকা ছেড়ে একটু দূরে গেলেই বোঝা যায়, তার জন্য হৃদয়ের গহিনে কত ভালোবাসা লুকানো থাকে!
এ মুহূর্তে তার হঠাৎই মনে পড়ল রাসূল সা:-এর কথা, যিনি প্রিয় জন্মভূমি মক্কা থেকে মদিনায় হিজরত করতে বাধ্য হয়েছিলেন। কিন্তু তিনি তার হৃদয়বৃক্ষ যেন রোপণ করে গিয়েছিলেন মক্কার মরু-প্রান্তরেই। এমনকি বিদায়বেলা তিনি আবেগাপ্লুত কণ্ঠে বলেছিলেন, ‘হে আমার জন্মভূমি! আমাকে যদি বের করে না দেয়া হতো, তাহলে তোমাকে ছেড়ে আমি কখনোই চলে যেতাম না।’ তার সাথে ছিলেন আরও অনেক সাহাবী। শেকড়ের টানে তারা উদ্বিগ্ন থাকতেন সবসময়। কখন ফিরবেন নিজের ঘরে, এ স্বপ্ন ছিল তাদের নিত্যদিনের সঙ্গী। দীর্ঘ আট বছর পর, তারা মক্কায় পা রাখলেন বিজয়ীর বেশে। তাদের মনের ভাষা এবার স্থান পেল ইতিহাসের পৃষ্ঠায়। তবে এ মহাবিজয়ের সুসংবাদ আল্লাহতায়ালা আগেই জানিয়ে রেখেছিলেন তার প্রিয় হাবিবকে। তিনি বলেন, “নিশ্চয়ই আল্লাহ তার রাসূলের স্বপ্নকে যথাযথভাবে বাস্তবায়ন করে দেখিয়েছেন। আল্লাহর ইচ্ছায় অবশ্যই তোমরা মসজিদুল হারামে প্রবেশ করবে নিরাপদে।” (সূরা আল-ফাতহ : ২৭) তবে সে মহান বিজয় দিবসে রাসূল সা: স্থাপন করলেন এক অনন্য দৃষ্টান্ত। যারা তাকে আপন জন্মভূমি থেকে বের করে দিয়েছিল, তাদেরকেই তিনি বললেন, ‘আজ তোমাদের প্রতি আমার কোনো অভিযোগ নেই।’ জন্মভূমির প্রতি, জন্মভূমির মানুষের প্রতি ভালোবাসার এমন নিদর্শন আর কোথায় আছে!
নাজীবও তার দেশকে এভাবেই ভালোবাসতে চায়। তার কল্পনায় উঠে আসে একাত্তর। স্বাধীনতা। বিজয়। মানচিত্র এবং পতাকা। সে স্বপ্ন দেখে, কখন এ দেশ হয়ে উঠবে সত্যিই এক স্বপ্নপুরী। কখন ছোট-বড়, ধনী-গরিব, শত্রু-মিত্র সবাই এক হয়ে যাবে দেশ গড়ার জন্য। হাতে হাত রেখে গড়ে তুলবে ভালোবাসার নতুন বাংলাদেশ!
বিলাল হোসাইন নূরী

SHARE

Leave a Reply