Home নিয়মিত খোলা-ডাক খোলা-ডাক মার্চ ২০১৫

খোলা-ডাক মার্চ ২০১৫

দোয়া চাইছি
একজন কিশোরকে আদর্শ কিশোর হিসেবে গড়ে তুলতে নতুন কিশোরকণ্ঠের ভূমিকা অতুলনীয়। তাই কোনাবাড়ি গ্রামের কিশোরকণ্ঠ পাঠক ফোরামের বন্ধুরা মিলে কিশোরকণ্ঠ প্রচার কমিটি নামে একটি কমিটি গঠন করেছি। আমরা ১২ জনবিশিষ্ট এই কমিটির সদস্যরা প্রতি মাসে বিভিন্ন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে যাই এবং ছাত্রদের মাঝে কিশোরকণ্ঠ বিতরণ করে এর বন্ধু সংখ্যা বৃদ্ধিতে অগ্রণী ভূমিকা পালন করি। ইতোমধ্যে বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানে পাঠক ফোরাম গঠন করা হয়েছে। তাই খোলা ডাকের মাধ্যমে কিশোরকণ্ঠের পরিচালনা সদস্য ও দেশ-বিদেশের বন্ধুদের কাছে দেয়া প্রার্থনা করছি যেন আমরা ১২ জন আমাদের দায়িত্ব পালন করতে পারি।
ইশতিয়াক আহমদ শামীম
কোনাবাড়ি, ত্রিশাল, ময়মনসিংহ

স্বপ্নের ঠিকানা
কিশোরকণ্ঠ আমার প্রাণপ্রিয় পত্রিকা। দীর্ঘদিন ধরে কিশোরকণ্ঠ পড়ার মাধ্যমে কিশোরকণ্ঠ আমার উত্তম বন্ধুতে পরিণত হয়েছে। যার মাধ্যমে আমি আমার স্বপ্নের ঠিকানা খুঁজে পেয়েছি। কিশোরকণ্ঠের প্রত্যেকটি বিভাগ যেন স্বপ্নের রাজা বলে মনে হয়, কারণ হাসির বাক্স, কুরআনের আলো, হাদিসের আলো, স্মরণ, স্বাস্থ্য কথা ইত্যাদি পড়ে আমার কাছে অনেক ভালো লাগে। আর এগুলো আলোর পথ দেখায়। সব মিলিয়ে যেন মনে হয় সত্যিই আমি স্বপ্নের ঠিকানা খুঁজে পেয়েছি।
কুলছুম আক্তার
চৌদ্দগ্রাম, কুমিল্লা

অতুলনীয় পত্রিকা
এ দেশে বহু দৈনিক, সাপ্তাহিক মাসিক, ত্রৈমাসিক পত্রিকা আছে। কিন্তু কিশোরকণ্ঠ পত্রিকা সব পত্রিকাকে হার মানায়। অন্য পত্রিকায় শুধু দৈনিক সংবাদ আর বিনোদন খেলাধুলার সংবাদ প্রকাশিত হয়। কিন্তু কিশোরকণ্ঠ পত্রিকায় গল্প, কৌতুক, সংবাদ, কবিতা, খেলাধুলা, জীবন পরিচিতি, স্বাস্থ্য ইত্যাদি প্রকাশিত হয়। মোট কথা, কিশোরকণ্ঠ পত্রিকা একটি অতুলনীয় পত্রিকা।
মো: আরিফুল ইসলাম (আরিফ)

আমার প্রিয় পত্রিকা
কিশোরকণ্ঠ আমার প্রাণপ্রিয় পত্রিকা। যদি জ্ঞানের জগতে প্রবেশ করতে চাও তাহলে কিশোরকণ্ঠকে সাথী বানাও। বাংলাদেশের প্রত্যন্ত অঞ্চলে ছড়িয়ে রয়েছে এই পত্রিকা। প্রতিদিন কিশোরকণ্ঠের পাঠকের সংখ্যা বৃদ্ধি পাচ্ছে। কিশোরকণ্ঠ সব সময় সত্য-ন্যায়ের সমাজ উপহার দেয়ার জন্য সর্বদা একতাবদ্ধ। কিশোরকণ্ঠের প্রতিটি বিভাগ, গল্প, ছড়া অনেক সুন্দর। বিশেষ করে ক্যারিয়ার গাইড লাইন, মোরা বড় হতে চাই এই বিভাগটি আমার খুব ভালো লাগে। তাই আমাদের প্রত্যাশার কিশোরকণ্ঠ সবার মাঝে আলোর প্রদীপ হয়ে বেঁচে থাকবে।
মুহাম্মাদ ইব্রাহীম খলিল চৌধুরী
কাথরিয়া, বাঁশখালী চট্টগ্রাম

আরও আগে চাই
আমার মনে হয় কিশোরকণ্ঠ আমার অন্য প্রাণ। আমি কিশোরকণ্ঠ পড়ছি ২০১০ সাল থেকে অর্থাৎ ৩য় শ্রেণী থেকে। কিশোরকণ্ঠ পড়ে আমি অনেক কিছু জানতে পারি। যেমন কুরআনের আলো, হাদিসের আলো, কবিতা, স্মরণ, স্বাস্থ্য কথা, খেলার চমক,  ক্যারিয়ার গাইড লাইন, গল্প, কিশোর জিজ্ঞাসা, কার্টুন, বিজ্ঞান জগৎ, হাসির বাকসো, আরও অনেক জানার কিছু, তাই কিশোরকণ্ঠ তাড়াতাড়ি পেতে চাই। মাসের ২০-২৩ তারিখে কিশোরকণ্ঠ পেলে আমি খুবই ক্লান্তিতে পড়ে যাই। তাই আমার একটা অনুরোধ মাসের শুরুতে যেন কিশোরকণ্ঠ পাই। কিশোরকণ্ঠ আরও আগে চাই।
ইসসামুল হক তুষার
জলেদী, বাঁশখালী, চট্টগ্রাম

কৌতূহলী করে
কিশোরকণ্ঠ সর্বাধিক প্রচারিত শিশু কিশোর মাসিক পত্রিকা। এ পত্রিকাটি আমার সবচেয়ে প্রিয়। এর বিভিন্ন বিভাগ বিভিন্ন রকম যেমন : হাসির বাকসো, কার্টুন, খেলার চমক ইত্যাদি মনে আনন্দ দেয়। কিশোর উপন্যাস, ছড়া, গল্প, নাটিকা ইত্যাদি বুদ্ধিমান করে তোলে। এ টু জেড মনীষা, সায়েন্স ফিকশন ইত্যাদি জীবনে চলার পথকে বেগবান করে। বলতে পারো, শব্দধাঁধা, অনুশীলন ইত্যাদি মনকে কৌতূহলী করে তোলে। সব মিলিয়ে কিশোরকণ্ঠ আমার প্রিয় পত্রিকা এবং কিশোরকণ্ঠ পরিবারকে অসংখ্য ধন্যবাদ।
আবদুল্লাহ আল আবরার, সাহাপুর, লক্ষ্মীপুর

এক নিমিষে ছিয়ানব্বই
অনেক দিনের জমানো কথা হৃদয়ের শত আবেগ নিয়ে, ডিসেম্বর সংখ্যাটি হাতে পাওয়া মাত্রই দুই কলম লেখার জন্য মনটা কেমন ছটফট করে উঠলো। ভালোলাগা আর ভালোবাসার ডালা সাজিয়ে বসলাম হিয়ার মাঝের কুঞ্জবনে। এক নিমিষে ছিয়ানব্বই পৃষ্ঠার কিশোরকণ্ঠ বন্ধুটির সাথে মনের সব লেনাদেনার হিসাব করে নিলাম। ‘বিজয় শুধুই আমাদের’ শিরোনামের সাথে আমিও উচ্চস্বরে বলে উঠলাম অবশ্যই বিজয় শুধু আমাদের ভালো থেকো বন্ধু এই কামনা।
মো: ইব্রাহীম বিন রশীদ
চরগাজীপুর, বোরহানউদ্দিন, ভোলা

আলোর দিশারি
প্রথমে আমার সালাম গ্রহণ কর। নতুন কিশোরকণ্ঠের সদস্যমন্ডলীকে আমার মন প্রাণ থেকে আন্তরিক মোবারকবাদ। আপনাদের নতুন কিশোরকণ্ঠ পাওয়ার জন্য আমার আরেকটি মাস অপেক্ষা করতে হয়। শীতের দিনে নুতন কিশোরকণ্ঠ পাওয়া মাত্রই একটি মাসের যে দুঃখ বেদনা সব আমি ভুলে যাই। নুতন কিশোরকণ্ঠ আমাকে স্বপ্ন দেখাতে শিখিয়েছে এবং পড়া লেখায় আগ্রহী কারে গড়ে তুলছে।
মো: সাইদুর রহমান (সাইদ)
ত্রিশাল, ময়মনসিংহ

SHARE

Leave a Reply