Home কুরআন ও হাদিসের আলো স্বাধীনতা অর্জনের চেয়ে রক্ষা করা আরো কঠিন

স্বাধীনতা অর্জনের চেয়ে রক্ষা করা আরো কঠিন

hadithহজরত ইবনে আব্বাস (রা) থেকে বর্ণিত। তিনি বলেন, রাসূলুল্লাহ (সা) মক্কা বিজয়ের দিন বলেছেন, এখন আর হিজরাত (দেশান্তর) নেই। কিন্তু জিহাদ এবং নিয়ত অবশিষ্ট আছে। তোমাদের যখনই জিহাদে যাওয়ার জন্য ডাক দেয়া হবে তখনই তোমরা বেরিয়ে পড়বে। (সহিহ মুসলিম, হাদিস নম্বর ৪৬৭৮)

বন্ধুরা, সামনে আসছে আমাদের মহান বিজয় দিবস। রাসূলুল্লাহ (সা) তাঁর মহান মক্কা বিজয়ের দিবসে প্রদত্ত ভাষণের অংশবিশেষের ওপর হজরত আবদুল্লাহ ইবনে আব্বাস বর্ণিত একটি হাদিস তোমাদের সামনে উপস্থাপন করেছি। তোমরা রাসূলের প্রিয় সাহাবী ও চাচাতো ভাই হজরত আবদুল্লাহ ইবনে আব্বাস (রা)কে জান আশা করি। তাঁর নাম আবদুল্লাহ। উপাধি হিবরুল উম্মাহ। পিতার নাম আব্বাস। রাসূল (সা) আবদুল্লাহ ইবনে আব্বাসের দ্বীনি ও তাফসিরশাস্ত্রের অগাধ জ্ঞান বৃদ্ধির জন্য দোয়া করেছিলেন। ফলে তিনি শ্রেষ্ঠ মুফাস্সিরদের একজনে পরিণত হয়েছিলেন।
তিনি ১৬৬০টি হাদিস বর্ণনা করেন। রাসূলের (সা) ইন্তেকালের সময় তার বয়স হয়েছিল ১০ বা ১৩ বছর। অত্যন্ত মেধাবী ছোট্ট এই সাহাবী রাসূলের মক্কা বিজয় দিবসের ভাষণ থেকে হাদিস বর্ণনা করেছেন।
সাহাবায়ে কিরাম আজ বিজয়ী হয়েছেন। মক্কা বিজিত এলাকা। কোনো এলাকা থেকে হিজরতের (দেশান্তরের) প্রয়োজন দু’টি কারণে দেখা দেয়। প্রথমত, যদি মুসলমানদের জান-মাল সে এলাকায় বিপন্ন হয়ে পড়ে; দ্বিতীয়ত, দ্বীন ও ঈমান রক্ষা করা অসম্ভব হয়ে যায়। নবী (সা) বলেছেন, “প্রাণ ও দ্বীনের ওপর বিপর্যয় নেমে আসার আশঙ্কা হলে সে এলাকা থেকে যদি কোন ব্যক্তি হিজরত করে, আল্লাহ তাকে সিদ্দীক (অধিক সত্যবাদী) হিসেবে গ্রহণ করেন এবং মৃত্যুর সময় তাকে শহীদ হিসেবে গণ্য করেন।” এই হিজরত কেয়ামত পর্যন্ত অবশিষ্ট থাকবে।
কিন্তু কোনো এলাকায় ইসলাম বিজয়ী শক্তি হিসেবে প্রতিষ্ঠিত হলে তখন মুসলমানদের দ্বীন ও জান-মালের ওপর কোন হুমকি অবশিষ্ট থাকে না। তাই সে এলাকা থেকে হিজরত করার কোনো প্রয়োজন থাকে না। তাই রাসূল (সা) বলেছেন, মক্কা বিজয়ের পর মুসলমানদেরকে আর কোথাও পালিয়ে থাকতে হবে না। অর্থাৎ নবীজীর জীবদ্দশায় আল্লাহ ও তাঁর রাসূলের নির্দেশে হিজরত করা যেমন ফরজ ছিল আজ মক্কা বিজয়ের পর সে বাধ্যবাধকতা অবশিষ্ট নেই। কিন্তু যুদ্ধাবস্থায় দেশের স্বাধীনতা, সার্বভৌমত্বের প্রশ্নে শত্রুদের সাথে প্রতিরোধ সংগ্রাম অব্যাহত থাকবে। দেশে শান্তিপূর্ণ অবস্থা বিরাজ করলেও মুসলমানগণ অন্তরে জিহাদের নিয়ত ও অনুপ্রেরণা পোষণ করবে। কারণ নিরবচ্ছিন্ন সংগ্রামই একটি আদর্শকে টিকিয়ে রাখতে পারে।
গ্রন্থনায় : মিজানুর রহমান

SHARE

Leave a Reply