Home নিয়মিত হাসির বাকসো

হাসির বাকসো

Hasir-Bacsho-133x150মন্টু : আচ্ছা চাচা, এত বড় বড় বিমান রঙ করে কিভাবে?
চাচা : আরে বোকা! বুঝলি না, যখন বিমান আকাশে ওড়ে তখন তো ছোট হয়ে যায়। তখন রঙ করে।
সংগ্রহে : রুবাইয়াত শারমীন সরকারি বালিকা বিদ্যালয়, পাবনা

শিক্ষক : তুমি কিভাবে বুঝলে পাখির দৃষ্টিশক্তি খুব ভালো?
ছাত্র : কারণ আমি এ পর্যন্ত কোনো পাখিকে চশমা পরতে দেখিনি।
সংগ্রহে : রাজিয়া সুলতানা রুবি নারায়ণপুর, নবাবগঞ্জ

বাবা : তুমি এরকম হাত উঁচু করে দাঁড়িয়ে আছো কেন?
ছেলে : তুমিই তো বললে আজ স্কুলে যা যা করিয়েছে তা আবার করে দেখাতে।
সংগ্রহে : আব্দুল্লাহ আল মারূফ, টিকরামপুর দাখিল মাদ্রাসা, চাঁপাইনবাবগঞ্জ

বন্ধুর বিকট দর্শন কুকুরকে দেখিয়ে আরেক বন্ধু জানতে চাইল, আচ্ছা আমি যদি ওর সামনে দিয়ে দৌড়ে যাই তাহলে সে কি আমাকে কামড়াবে?
: এটা পুরোটাই নির্ভর করে তুই কত জোরে দৌড়াতে পারিস তার ওপর।
সংগ্রহে : জাহীদ হাসান
হিংগাজিয়া মাদ্রাসা, মৌলভীবাজার

সেন্টু একটা ব্যাগ হাতে নিয়ে যাচ্ছিল। এমন সময় দেখা হলো মন্টুর সাথে।
মন্টু : ব্যাগের ভেতর কী আছে রে?
সেন্টু : পেয়ারা।
মন্টু : একটা দে না ভাই।
সেন্টু : আহা! কয়টা আছে বলতে পারলে তিনটাই দিয়ে দেবো।
সংগ্রহে : নুসরাত আলম নাবীলা
বিএন কলেজ, ঢাকা

একদা এক ব্যক্তি বাসে উঠতে না পেরে বাসের পেছনে দৌড়াতে দৌড়াতে তার গন্তব্যে পৌঁছে গেল। তারপর
প্রথম ব্যক্তি : জানিস, আজ আমার ৫ টাকা বেঁচে গেছে।
দ্বিতীয় ব্যক্তি : কিভাবে?
প্রথম ব্যক্তি : আজ বাসে না উঠে ওটার পেছনে  দৌড়াতে দৌড়াতেই চলে এসেছি।
দ্বিতীয় ব্যক্তি : তুই একটা আস্ত বোকা, তুই বাসের পেছনে না দৌড়ে একটি সিএনজির  পেছনে দৌড়ালে তোর ৫০ টাকা বাঁচত।
সংগ্রহে : আবুল বাসার
বেপজা পাবলিক স্কুল, ইপিজেড, চট্টগ্রাম

দুই বন্ধুর মধ্যে কথা হচ্ছে-
প্রথম বন্ধু : দোস্ত আজ কী খেয়ে বের হলি?
দ্বিতীয় বন্ধু : খেয়েছি কয়েক শ’ ডিম।
প্রথম বন্ধুৃ : তোর মাথা খারাপ নাকি! এত ডিম কেউ এক সঙ্গে খেতে পারে?
দ্বিতীয় বন্ধু : আরে এ তো হাঁস- মুরগির ডিম নয়।
প্রথম বন্ধু : তাহলে?
দ্বিতীয় বন্ধু : রুই মাছের ডিম।
সংগ্রহে : জুয়েল রানা সোহাগ
ধর্মপুর নাজিম আলী
উচ্চবিদ্যালয়, চৌদ্দগ্রাম, কুমিল্লা

SHARE

Leave a Reply